DIGITAL

October 5, 2022

APTCE 18538973148

প্রসঙ্গ দিগরখাল চেক গেইট , বাস্তবে হচ্ছে টা কি?-অভিমত

বিশেষ প্রতিবেদন ২রা মার্চ শিলচর—– প্রায় সময় শূনতে পাওয়া যায়, ডাক্তার ভালো কিন্তু ঔষধ ভেজাল,ঠিক আজ জনৈক ট্রাক চালক বললেন সরকার ভালো কিন্তু প্রসাশন ভেজাল । এই কথা শুনে এই প্রতিবেদক রহস্য উদঘাটন করতে প্রশ্ন করলেন কেন আপনি এইসব বললেন, উত্তরে এই ট্রাক চালক বললেন সরকার কর ফাঁকি রুখতে যৌথ চেক গেইট বসিয়েছে , আমরা ও ভারতীয় নাগরিক, একজন নাগরিক হিসেবে সরকারের নির্ধারিত কর পরিশোধ করতে হয়, আমরা ও করছি, ট্রাক চালক যাবতীয় কাগজপত্র দেখিয়ে বললেন এই দেখুন।

তাহলে গেইট পার হচ্ছেন না কেনো? উত্তরে এই ট্রাক চালক বললেন এখানেই রহস্য , আমরা শুধু প্রবেশ কর প্রদান করব, যেহেতু আমাদের সব কর আগেই জমা হয়ে গেছে , কিন্তু আজ সপ্তাহ খানেক ধরে আমাদের কে থামিয়ে রাখা হয়েছে কাগজপত্র ঠিক আছে কি না তা পরীক্ষা করার জন্য । কিন্তু অতীব দুঃখের বিষয় আমাদের যে সব ট্রাক চালক ভাইদের। কাগজপত্র ঠিক নয় এমনকি কয়লার চালান পর্যন্ত নেই তাদের আর ভেরিফিকেশন লাগে না তারা দিব্বি চলে যায়,যা কিনা নিত্যদিনের ঘটনা । সব ঝামেলা আমাদের যাদের গাড়ীর ও সামগ্রীর বৈধ কাগজপত্র রয়েছে তাদের এই গেইটে আটকে রাখা হয়।

সংবাদ কর্মী জেনে তিনি আরও বলেন আমরা ভিন রাজ্য থেকে ট্রাক চালিয়ে আসামে ঢুকার পর সব ঝামেলা শুরু হয় ।এই দশ পনেরো দিন পূর্বে বড়খলা পুলিশ ও তিনটি কয়লা বোঝাই ট্রাক রাস্তায় দশ দিন দাঁড় করিয়ে রেখেছিলো বোঝাপড়া না করাতেই দশ দিন দাঁড় করানো হয়েছে বলে ট্রাক চালক ভাইদের অভিযোগ। এখানে উল্লেখ্য যে মাইনস এন্ড মিনারেলস এর উপর পুলিশের কোনো এক্তিয়ার নেই, তথাপি হেনস্থা করা হয় । এদিকে নূতন নির্দেশিকা এখনও পর্যন্ত ঘোষণা করা হয় নি কেনো বলে জোরদার আলোচনা শুরু হয়েছে। আজ এই প্রতিবেদক কে জনৈক ব্যক্তি বলেন এটাই বর্তমান সরকারের নতুন নির্দেশনা বৈধভাবে পরিবহন করতে হলে ভেরিফিকেশন বাধ্যতামূলক, অবৈধভাবে করতে হলে ভেরিফিকেশন দরকার নেই,এটাই বর্তমান সরকারের স্বচ্ছ প্রসাশনের এক জ্বলন্ত উদাহরণ।